নভোথিয়েটার সময়সূচী ২০২৪

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নভোথিয়েটার একটি অতি আধুনিক প্ল্যানেটেরিয়াম নভোথিয়েটার। এটিকে 1995 সালে ঢাকায় একটি উপানুষ্ঠানিক বিজ্ঞান শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে স্থাপনের পরিকল্পনা করা হয়েছে। বিশেষ করে যুবক-যুবতীদের মনে ইতিবাচক বৈজ্ঞানিক মেজাজ জাগ্রত করতে এবং বিনোদনের মাধ্যমে জ্যোতির্বিদ্যার প্রতি আগ্রহ সৃষ্টি করতে নভোথিয়েটারের উদ্বোধন করা হয়েছে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now
Instagram Group Join Now
নভোথিয়েটার সময়সূচী
নভোথিয়েটার সময়সূচী

25 সেপ্টেম্বর 2004 তারিখে তেজগাঁওয়ের বিজয় সরণিতে 5.46 একর জমিতে বিজ্ঞান এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি। স্থপতি আলী ইমাম নভোথিয়েটারের স্থাপত্য নকশা তৈরি করেন। প্রকল্পের মোট ব্যয় 1231 মিলিয়ন টাকা যা সম্পূর্ণভাবে সরকার প্রদান করেছে। গ্রহের যন্ত্রপাতি GOTO Inc., জাপান দ্বারা সরবরাহ করা হয়েছে। মহান জননেতার নামানুসারে নভোথিয়েটারের নামকরণ করা হয় ‘ভাসানী নভোথিয়েটার’মাওলানা আব্দুল হামিদ খান ভাসানী । নভোথিয়েটার 27 সেপ্টেম্বর 2004 জনসাধারণের জন্য খোলা হয়েছে।

বাংলাদেশ সংসদ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নভোথিয়েটার আইন 2010 অনুমোদন করেছে যেখানে নভোথিয়েটারকে একটি স্বায়ত্তশাসিত সংস্থা বলা হয়েছে এবং ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নভোথিয়েটার’ নামে নতুন নামকরণ করা হয়েছে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নভোথিয়েটারে দুটি চলচ্চিত্র প্রদর্শনী হয় । প্ল্যানেটেরিয়াম শো ‘জার্নি টু ইনফিনিটি’ ফিল্মটি দর্শকদের সৌরজগতে নিয়ে যায়, যা দৃশ্যমান মহাবিশ্বের চূড়ান্ত সীমা প্রকাশ করে। 9 আগস্ট 2009 থেকে আরেকটি বড় ফরম্যাটের ফিল্ম ‘এই আমাদের বাংলাদেশ’ চলছে। শো আমাদের স্বাধীনতা এবং আমাদের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের গুরুত্বপূর্ণ স্থানগুলিকে উপস্থাপন করে। 

নভোথিয়েটার টিকেট মূল্য

প্রতিটি শোতে নভোথিয়েটারের মোট আসন ধারণক্ষমতা 275। প্লানেটেরিয়াম শো-এর প্রতিটি টিকিটের মূল্য 50.00 টাকা মাত্র। টেলিটক মোবাইল ফোনের মাধ্যমে এসএমএস করে টিকিট কিনতে পারবেন মানুষ।

নভোথিয়েটার সময়সূচী ২০২৩

বর্তমানে নভোথিয়েটারে প্রতিদিন ৫টি শো চলছে। প্ল্যানেটেরিয়াম শোয়ের সময়সূচী হল শনিবার, রবিবার, সোম, মঙ্গলবার এবং বৃহস্পতিবার সকাল 11 টা, 1 টা, 3 টা, 5 টা এবং সন্ধ্যা 7 টা এবং শুক্রবার 10 টা, 11:30 টা, 3 টা, 5 টা এবং 7 টা। বুধবার সাপ্তাহিক ছুটি।

নভোথিয়েটার বৈজ্ঞানিক প্রদর্শন

প্লানেটেরিয়াম শো ছাড়াও নভোথিয়েটারে কিছু বৈজ্ঞানিক প্রদর্শনী রয়েছে যেমন সৌরজগতের গ্রহের আকার, সূর্য, পৃথিবী এবং চাঁদের মডেল, নক্ষত্রের আকার এবং স্বচ্ছ সেলেস্টিয়াল গ্লোব। নভোথিয়েটারে বিশ্বখ্যাত বিজ্ঞানীদের কিছু ছবিও পাওয়া যায়। নভোথিয়েটারে একটি 150টি বসার সুসজ্জিত অডিটোরিয়াম, 50টি বসার বিশাল সম্মেলন কক্ষ, হাইড্রোলিক লিফট এবং একটি গাড়ি পার্কিং এরিয়া রয়েছে যার ধারণক্ষমতা 100টি গাড়ি রয়েছে৷

নভোথিয়েটারে শুরু থেকেই কম্পিউটার মেলা, মহাকাশ মেলা, ইন্টারনেট মেলা, বিভিন্ন সেমিনার, বৈজ্ঞানিক কর্মশালা ইত্যাদি নিয়মিত আয়োজন করা হচ্ছে।

রাইড সিমুলেটর 23 অক্টোবর 2008 থেকে চলছে। একটি স্পেস শাটলের উল্লম্ব এবং অনুভূমিক গতি প্রায় 30 ডিগ্রি কোণ যা পিরামিড এবং রোলার কস্টার, মনো রেল, মিশর এবং বিমান ফাইটারের প্রাচীন বিশ্বের দিকে নিয়ে যায়। রাইড সিমুলেটরের মোট আসন ক্ষমতা একবারে 30 এবং প্রতিটি টিকিটের মূল্য 20.00 টাকা মাত্র।

নতুন প্রকল্পের মাধ্যমে শীঘ্রই আধুনিক বৈজ্ঞানিক প্রদর্শনীও স্থাপনের পরিকল্পনা করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নভোথিয়েটারের মোট পদ ৬০টি। বর্তমানে নভোথিয়েটারে পরিচালকসহ ৪০ জন কর্মকর্তা-কর্মচারী কর্মরত আছেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top